সংবাদ শিরোনাম :
ক্ষুদ্র-নৃ-গোষ্ঠীর শিক্ষার্থীদের আলোর পথ দেখাচ্ছেন শ্রীমঙ্গলের ইউএনও

ক্ষুদ্র-নৃ-গোষ্ঠীর শিক্ষার্থীদের আলোর পথ দেখাচ্ছেন শ্রীমঙ্গলের ইউএনও

এম.মুসলিম চৌধুরী,নিজস্ব প্রতিবেদক:
মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গল উপজেলার প্রত্যেন্ত এলাকার ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর শিক্ষার্থীদের মধ্যে শিক্ষার আলো ছড়িয়ে দিতে শিক্ষার্থীদের নিজস্ব ভাষার পাশাপাশি শুদ্ধ বাংলা পড়া ও কথা বলাসহ শিক্ষায় উৎসাহ উদ্দীপনাসহ বিভিন্ন সহায়তা দিয়ে যাচ্ছেন সদ্য ঘোষিত সিলেট বিভাগের শ্রেষ্ঠ উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) আলী রাজিব মাহমুদ মিঠুন।
রোববার (২৯ অক্টোবর) সকালে শ্রীমঙ্গল উপজেলা নির্বাহী অফিসার আলী রাজিব মাহমুদ মিঠুন উপজেলার প্রত্যন্ত অঞ্চল সিন্দুরখান ইউনিয়নের জাম্বুরাছড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পরিদর্শন করতে যান। পরিদর্শকালে তিনি দেখেন বিদ্যালয়ের ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর শিক্ষার্থীরা যথারিতি স্কুলে ক্লাস করছেন। কিন্তু অন্য শিক্ষার্থীদের সঙ্গে তেমন ভাবে মিশছেনা এবং কথাও বলছেনা। এসব বিষয় ইউএনও’র দৃষ্টি গোচর হলে বিষয়টি নিয়ে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের সাথে কথা বলেন। প্রধান শিক্ষক জানান, এ বিদ্যারয়ে ত্রিপুরা, সাঁওতালসহ বেশ কয়েকটি ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী পরিবারের শিক্ষার্থীরা লেখাপড়া করছে। কিন্তু তাদের ভাষাগত সমস্যার কারণে অন্যান্য শিক্ষার্থীদের সাথে মন খোলে কথা বলতে পারেনা এবং অন্যদের সাথে মিশতেও সংকোচ বোধ করে। কোন প্রশ্ন করলে শুদ্ধ বাংলা ভাষায় জবাব দিতে পারেনা এমনকি সাবলীলভাবে বাংলা পড়তে লিখতে পারছে না এসব শিক্ষার্থী।

বিষয়টি অবগত হয়ে ইউএনও আলী রাজিব মাহমুদ মিঠুন এসব নৃ-গোষ্ঠীর শিক্ষার্থীদের জন্য বাংলা ভাষা চর্চার জন্য জাম্বুরাছড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়সহ একজন উচ্চ পর্যায়ের শিক্ষার্থীকে খন্ডকালীন শিক্ষক হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়। এই শিক্ষক ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী পরিবারের শিশুদের শুদ্ধ বাংলা ভাষা শিক্ষা দিবেন।
ইউএনও জানান, বিদ্যালয় পরিদর্শনে গিয়ে বিষয়টি নজরে আসলে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে একজন খন্ডকলীন শিক্ষক নিয়োগ দিয়েছি। যাতে এসব শিশু শিক্ষার্থীরা শুদ্ধ বাংলা ভাষা পড়তে ও শিখতে পারেন এবং মনের তথা স্বাচ্ছন্দে প্রকাশ করতে পারেন। প্রত্যেক শিশুর কাছে বিদ্যালয়কে আনন্দের জায়গায় পরিনত করার প্রয়াস। তিনি এ উদ্যোগের সাথে সংস্লিষ্ট সকলকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান।

সংবাদটি শেয়ার করুন :





© All rights reserved © 2021 Holysylhet